360 x 130 ad code [Sitewide - Site Header]

রমজানুল করিম: শাবিপ্রবি ২০১৬

Share via email

কর্ণ:

iftar logo 4 x 3পবিত্র শাওয়াল মাসের ১ তারিখ ঈদ-উল-ফিতরের আগে পুরো রমজান মাস জুড়ে যে আনন্দটি রোজাদারেরা উপভোগ করে, তা হলো পরিচিতজনদের সাথে একসাথে ইফতার করার মাধ্যমে। এতে গড়ে ওঠে সম্প্রীতি ও সৌহার্দ্য। এছাড়াও, একসাথে ইফতার প্রস্তুত করা থেকে শুরু করে ইফতার করা পর্যন্ত পুরো বিষয়টি ঐকতার পরিচায়ক। সহপাঠী, বড়-ছোট সবার সাথে সৌহার্দ্যপূর্ণ আনন্দ ভাগাভাগি করে নেয়ার একটি মাধ্যম হলো ইফতার মাহফিল। আর তাই, প্রতিবছর ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে থাকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় প্রতিটি বিভাগ, প্রায় প্রতিটি সংগঠন। এ বছরও তার ব্যতিক্রম ঘটে নি, তবে এবার রমজানের শুরুর দিকেই ক্যাম্পাস বন্ধ হয়ে যাওয়ায় বরাবরের তুলনায় সংখ্যাটা ছিল কম।

গত জুন ৮ তারিখে শাবিপ্রবির মাননীয় উপাচার্য অধ্যাপক ডক্টর ডক্টর মো. আমিনুল হক ভূইয়ার আমন্ত্রণে রেজিস্ট্রার ভবনে ইফতার মাহফিলে অংশ নেন আমন্ত্রিত অতিথিবৃন্দ। এঁদের মাঝে ছিলেন শাবিপ্রবির কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডক্টর মো ইলিয়াস উদ্দীন বিশ্বাস, রেজিস্ট্রার মুহাম্মদ ইশফাকুল হোসেন, ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর ও ছাত্র উপদেশ ও নির্দেশনার পরিচালক অধ্যাপক ডক্টর মো রাশেদ তালুকদার ও সহকারী প্রক্টরবৃন্দ।

শাবিপ্রবির বন্ধের আগে শেষ দিনে, জুন ৯ তারিখে ‘ডক্টর গোবিন্দ চন্দ্র দেব ভবন’ (শিক্ষাভবন ডি) এর দ্বিতীয় তলায় ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে অর্থনীতি বিভাগ। ইফতারে বিভাগের শিক্ষকমণ্ডলী, সাবেক ও বর্তমান শিক্ষার্থীসহ বিভাগে কর্মরত কর্মকর্তা কর্মচারীগণ উপস্থিত ছিলেন। ইফতার মাহফিল শেষে আয়োজিত এক সংক্ষিপ্ত অনুষ্ঠানে ইফতার মাহফিল আয়োজক কমিটি ২০১৬ এর আহ্বায়ক ৩য় বর্ষের শিক্ষার্থী ফাহাদ হোসেনের সভাপতিত্বে ও একই বর্ষের শিক্ষার্থী আদিব হাসান রিশাতের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক সাদিকুন্নবী, আশরাফুজ্জামান রবিন, সহকারী অধ্যাপক গিয়াস উদ্দিন খান, আসলাম হোসাইন, প্রভাষক অমিত রায়, বিভাগের সাবেক শিক্ষার্থী যুলকারনাইন রাদ, রহিম তালুকদার, রাজিব কুমার দেব, সাইফুল মাহমুদ, রিয়াসাত মুফতি প্রতিক, কামরুল ইসলাম প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বক্তারা বাস্তব জীবনে রমজানের শিক্ষা ও তার প্রয়োগ নিয়ে আলোচনা করেন। এছাড়াও তারা সফলভাবে ইফতার মাহফিল আয়োজন করার জন্য আয়োজকদের ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে আশা প্রকাশ করেন প্রতিবছর যাতে এই ধারা বজায় থাকে। এছাড়া উপস্থিত সকলেই বিভাগের পুনর্মিলনী করার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

অর্থনীতি বিভাগের ইফতার মাহফিল || ছবি: ইন্টারনেট

অর্থনীতি বিভাগের ইফতার মাহফিল || ছবি: ইন্টারনেট

এর দুই দিন আগে, অর্থাৎ জুন ৭ তারিখে শাবিপ্রবির ক্যাফেটেরিয়ায় ইফতার মাহফিলের আয়োজনে করে শাবিপ্রবির ব্যাণ্ড দল ‘নোঙ্গর’। এতে নোঙ্গরের সাধারণ সদস্যবৃন্দ ও ২০০৮, ‘০৯, ‘১০ এর জ্যেষ্ঠ সদস্যবৃন্দ ছাড়াও আরও ছিলেন অন্যান্য সংগঠনের কতিপয় সদস্যবৃন্দ। ঐদিন প্রতিবছর ঢাকায় নোঙ্গর আয়োজিত ইফতার মাহফিলের তারিখ ও স্থান ঘোষণা করা হয়।

এর পরের দিন, অর্থাৎ রমজান ২ তারিখে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে ‘এস,ইউ,ডি,এস’, ‘ট্যুরিস্ট ক্লাব’, ‘দিক থিয়েটার’ ও ‘স্পোর্টস সাস্ট’।

এস, ইউ, ডি, এস আয়োজিত ইফতার ও দোয়া মাহফিলে উল্লেখযোগ্যদের মাঝে ছিলেন রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ও এস, ইউ, ডি এস-এর সাবেক মডারেটর জায়েদা শারমিন স্বাতী, বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর ও লোকপ্রশাসন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ সামিউল ইসলাম এবং রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ শাকিল ভূঁইয়া। এস, ইউ, ডি ,এস এর সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক তৌহিদ আহমদের সঞ্চালনায় এই ইফতার মাহফিলে সিলেটে অবস্থানরত সংগঠনটির সিনিয়র সদস্যরাও উপস্থিত ছিলেন। সংগঠনের সদস্যদের পাশাপাশি বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্যান্য সাংস্কৃতিক সংগঠনের অনেকেই এই ইফতার এ দোয়া মাহফিলে অংশগ্রহণ করেন।

বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রের ১০৩ নং কক্ষে এক ঘরোয়া ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে শাবিপ্রবির নাট্য সংগঠন ‘দিক থিয়েটার’। নতুন কার্যনির্বাহী পরিষদের ঘোষণার পর এটি ছিল তাদের প্রথম সাংগঠনিক কর্মকাণ্ড।  ইফতার মাহফিলের পর পরিষদের আসন্ন সম্ভাব্য কার্যক্রম নিয়ে অনানুষ্ঠানিক আলোচনা করা হয়।
এছাড়াও আই, আই, সি, টি ভবনের দ্বিতীয় গ্যালারীতে ‘ট্যুরিস্ট ক্লাব’ ও ক্যাফেটিরায় ‘স্পোর্টস সাস্ট’ ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে।

শুধু পরিচিতজনদের সাথেই নয়, শাবিপ্রবির দু’টি সংগঠন ইফতারের আয়োজন করে এমন মানুষদের জন্য, যারা অল্পেই খুশী হয়ে ওঠে, অথচ যাদের হাসির উপলক্ষ্য আসে কম। পথশিশুদের নিয়ে এমন আয়োজন করে ক্যাম্পাসের স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘কিন’ ও ‘স্বপ্নোত্থান’। গত জুন ৯ তারিখে বিকাল চারটায় ‘কিন স্কুল’ এর শিক্ষার্থীদের মাঝে ইফতার বিতরণ করে কিনের কর্মীরা। এরপর সংগঠনের সাধারণ সদস্যরা মিলে একত্রে ইফতার করেন।

এর দুইদিন পরে একইরকম আরেকটি আয়োজন করে স্বপ্নোত্থান। স্বপ্নোত্থানের স্বেচ্ছাসেবকবৃন্দ ভোলানন্দ নৈশ বিদ্যালয়ে কর্মজীবী শিশুদের পাঠদান করে থাকে। গত জুন ১১ তারিখে ভোলানন্দ নৈশ বিদ্যালয়ের বর্তমান ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের নিয়ে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে স্বপ্নোত্থান। এছাড়াও, এবার মাধ্যমিক পরীক্ষায় ভোলানন্দ নৈশ বিদ্যালয় থেকে উত্তীর্ণ আট শিক্ষার্থীকে সংবর্ধনা দেয়া হয়। উক্ত ইফতার মাহফিল ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর ও ছাত্র কল্যাণ ও নির্দেশনার পরিচালক ডক্টর মো রাশেদ তালুকদার। উল্লেখ্য, জুন ২ তারিখে পথশিশুদের জন্য ফল উৎসবের আয়োজন করে স্বপ্নোত্থান।


শাবিপ্রবিতে বিভিন্ন জেলার শিক্ষার্থীদের আনাগোনা। আর তাই, অনেক জেলাভিত্তিক অ্যাসোসিয়েশন রয়েছে শাবিপ্রবিতে। মূলত একজন নবীন শিক্ষার্থী যেন শাবিপ্রবি তথা বাড়ির বাইরে এসেও নিজের আশেপাশের মানুষদের সান্নিধ্যে থাকতে পারে – এরকম চিন্তাধারা থেকে সংগঠনগুলো কাজ করলেও সঙ্ঘবদ্ধভাবে নিজ জেলার উন্নয়নে কাজ করার ব্যাপারে এদের ভূমিকা আছে। তাই, নিজেদের মাঝে যোগাযোগ ও সম্প্রীতি  অক্ষুণ্ণ রাখতে নিজেদের মাঝে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করেন তারা। অনেক সময় সেই আয়োজনটা হয়ে থাকে নিজ জেলাতেই।

জুলাই ১ তারিখে প্রতি বছরের ধারাবাহিকতায় অনুষ্ঠিত হলো সাস্টিয়ান জামালপুরের ইফতার মাহফিল। জামালপুর শহরের অভিজাত রেস্টুরেন্ট রেড চিলিজ এ ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়।  এ মাহফিলে বর্তমান ও সাবেক মিলিয়ে প্রায় অর্ধশতাধিক শিক্ষার্থী অংশ নেন। এতে উপস্থিত ছিলেন রসায়ন বিভাগের তৃতীয় ব্যাচের মোঃ মন্জুরুল হক মুক্তা (সহকারী অধ্যাপক, সরকারি জাহেদা সফির মহিলা কলেজ), রাষ্ট্রবিজ্ঞান ও প্রশাসন বিভাগের (বর্তমানে রাষ্ট্রবিজ্ঞান এবং লোক প্রশাসন নামে দুইটা আলাদা বিভাগে বিভক্ত) দ্বিতীয় ব্যাচের শাকের আহমেদ চৌধুরী ডলার (সহকারী অধ্যাপক, সরকারি আশেক মাহমুদ কলেজ, জমালপুর), সমাজকর্ম প্রথম ব্যাচের আশরাফুজ্জামান স্বাধীন, অর্থনীতি চতুর্থ ব্যাচের হারুন অর রশিদ, সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের দশম ব্যচের মো মোজাম্মেল হক, বর্তমান সভাপতি ওমর ফারুক পলাশ, সাধারণ সম্পাদক খালেদ সাইফুল্লাহ ইলিয়াস সহ বর্তমান ও প্রাক্তন শিক্ষার্থীবৃন্দ। প্রতি বছরের মত আগামীতেও এ ধরনের অনুষ্ঠান আয়োজন করার এবং শাবিপ্রবি ক্যাম্পাসে সাস্টিয়ান জামালপুরের পুনর্মিলনী করার আশাবাদ ব্যাক্ত করে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘোষনা করা হয়।

একই দিনে বৃহত্তর ময়মনসিংহের সাস্টিয়ানদের নিয়ে ময়মনসিংহে একটি ইফতার মাহফিলের আয়োজন করা হয়। ময়মনসিংহ শহরের ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্টে এই ইফতার মাহফিল আয়োজিত হয়। এতে সাবেক এবং বর্তমান মিলিয়ে শাবিপ্রবির প্রথম ব্যাচ থেকে ষড়বিংশ ব্যাচের শতাধিক সাস্টিয়ান উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন শাবিপ্রবির রসায়ন বিভাগের অধ্যাপক ডক্টর আশরাফুল আলম। ইফতারের শেষে সকলের সম্মতিক্রমে ‘সাস্টিয়ান ময়মনসিংহ অ্যাসোসিয়েশন’ নামের একটি নতুন অ্যাসোসিয়েশন খোলার সিদ্ধান্ত হয়। বৃহত্তর ময়মনসিংহের যেকোনো সাবেক ও বর্তমান ছাত্র এই অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য হতে পারবেন। এটির কার্যক্রম হবে বৃহত্তর ময়মনসিংহে।

এছাড়াও জুলাই ৫ তারিখে ‘করতোয়া অ্যাসোসিয়েশন’ বগুড়া ও জয়পুরহাট এর বর্তমান ও প্রাক্তন সদস্যদের নিয়ে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে।


রাজধানী শহর ঢাকা। শাবিপ্রবিতে পড়তে আসা অনেক শিক্ষার্থীই বড় হয়েছেন ঢাকায়। আবার ঢাকায় বাসা না হলেও বিভিন্ন কাজে ঢাকায় আসতে হয় অনেককে। এছাড়াও অনেক প্রাক্তন শিক্ষার্থী জীবিকাসূত্রে থাকছেন ঢাকায়। এই থাকা আর আসা-কে ভিত্তি করে ঢাকায় ইফতার মাহফিলের মাধ্যমে মিলনমেলার আয়োজন করে অনেকে। বন্ধু-বান্ধব, পরিচিত জ্যেষ্ঠ, কনিষ্ঠ সহপাঠীরা এরকমভাবে ঢাকায় মিলিত হন। আবার অনেক সংগঠনও আয়োজন করে এই ধরণের মিলনমেলার। ‘থিয়েটার সাস্ট’, ‘নোঙ্গর’ ও ‘ট্যুরিস্ট ক্লাব’ এবছর এরূপ আয়োজন করে। গত জুন ১৭ তারিখে ধানমণ্ডির স্টার কাবাব রেস্টুরেণ্টে ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে নোঙ্গর। ‘ঢাকায় স্টার কাবাবে ইফতার করা নোঙ্গরের ঐতিহ্যগত’ বলে জানান সংগঠনের একজন সদস্য।  এই ইফতার মাহফিলে নোঙ্গরের ১৯৯৮ সাল থেকে শুরু করে বর্তমান সদস্যদের অনেকেই উপস্থিত ছিলেন। প্রাক্তন সদস্যদের মাঝে নোঙ্গরের এর প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্য ও প্রথম দপ্তর সম্পাদক রুহুল হাবীব মওলা (সি, ই, পি বিভাগ) ছিলেন। একই দিনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টি এস সি প্রাঙ্গণে ঢাকায় উপস্থিত প্রাক্তন ও বর্তমান সদস্যদের জন্য ইফতার মাহফিলের আয়োজন করে শাবিপ্রবির প্রথম নাট্য সংগঠন থিয়েটার সাস্ট।

জুন ২৪ তারিখে ধানমণ্ডির রবীন্দ্র সরোবরে ইফতার মাহফিল ও সংক্ষিপ্ত পুনর্মিলনীর আয়োজন করে শাবিপ্রবির ভ্রমণ বিষয়ক একমাত্র সংগঠন ট্যুরিস্ট ক্লাব। ইফতারের পর ওয়াজিহা তাসনিম পূর্বার সঞ্চালনায় একটি আলোচনা অনুষ্ঠান আয়োজিত হয়। এতে ক্লাবটির প্রাক্তন সদস্যবৃন্দ শাবির অন্যতম প্রবীণ এ ক্লাবটির উত্তরোত্তর সমৃদ্ধি কামনা করে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা মূলক আলোচনা করেন।


শাবিপ্রবির বয়স পঁচিশ পেরুলো। এই পঁচিশ বছরে শাবিপ্রবি দেশকে উপহার দিয়েছে অনেক মেধাবী শিক্ষার্থী, যারা বিভিন্ন পেশায় যুক্ত হয়ে দেশের সমৃদ্ধির পথে ভূমিকা রাখছেন ও দিকনির্দেশনা দিচ্ছেন। তাদের মাঝে যোগাযোগ যাতে অব্যাহত থাকে এজন্য সাবেক সাস্টিয়ানরা প্রতিবছর রমজানে আয়োজন করে থাকেন এক মিলনমেলার। উদ্দেশ্য, ইফতার মাহফিলের সাথে সাথে পুরনো যোগাযোগ ধরে রাখা ও নতুন মুখ চেনা।

সেই উদ্দেশ্যকে সামনে রেখে  একই দিনে ঢাকার উত্তরায় অবস্থিত ‘ইমোশন্স রেস্টুরেণ্ট অ্যাণ্ড মিউজিক ক্যাফে’তে ঢাকায় বসবাসরত শাবিপ্রবির সাবেক শিক্ষার্থীদের জন্য এক ইফতার মাহফিল ও ডিনার পার্টির আয়োজন করা হয়। এর আয়োজন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের শুরুর দিকের বিভিন্ন ব্যাচের শিক্ষার্থীবৃন্দ। এদের মাঝে ছিলেন শেখ সাব্বির, নাফিউর রহমান আবির, রাফি হিমেল, মিল্টন, রিন্টু, কামরুজ্জামান সুইট ও আরও কয়েকজন। মূলত শাবিপ্রবিতে অধ্যয়ন কালীন বিভিন্ন সময় বিভিন্ন অনুষ্ঠান ও কর্মকাণ্ডে যারা সক্রিয় ছিলেন তাদের উদ্যোগে এই আয়োজন করা হয়। এই আয়োজনে অংশ নেন শাবিপ্রবির প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকে শুরু করে পঞ্চবিংশ ব্যাচের শিক্ষার্থীবৃন্দ। ক্যাম্পাসে যারা সক্রিয় ছিল, তাদের মাঝে যোগাযোগ ধরে রাখার জন্য এই আয়োজন। এই ব্যাপারে আয়োজকদের একজন, কামরুজ্জামান সুইট বলেন, “এই ধরণের আয়োজনের মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যাচের শিক্ষার্থীদের মাঝে যোগাযোগটা বজায় থাকে এবং তা যেকোন বিপদে কিংবা উদ্যোগে সহযোগিতার জন্য সহায়ক।” আয়োজনে উপস্থিতগণ কিভাবে ক্যাম্পাসে প্রগতিশীল কর্মকাণ্ডের সহায়তায় ইতিবাচক ভূমিকা রাখা যায় সে বিষয়ে আলোচনা করেন।

এক সপ্তাহ পরে, জুলাই ১ তারিখে সিলেটে অনুরূপ আয়োজন করা হয়। এর প্রধান উপদেষ্টা হিসাবে মকদ্দুস আলী ও সমন্বয়ক হিসাবে শমশের রাসেল দায়িত্ব পালন করেন। জানা যায়, প্রতি বছরের ন্যায় এইবারও শাবিপ্রবি’র প্রাক্তন ছাত্রদের সংগঠন ‘সাস্টিয়ান’স’ এর উদ্যোগে এই ইফতার মাহফিলের আয়োজন করা হয়। এই ইফতার মাহফিলে গুলশান দুর্ঘটনায় নিহতদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা ও দোয়া করা হয়। এতে সমাজকর্ম বিভাগের সহকারী প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো ফারুক আহমেদ ছাড়াও সঞ্জয়, স্বপন, বেলায়েত সহ সাবেক শিক্ষার্থী শাব্বির আহমেদ চৌধুরী, ইসমাইল টিটু, মাসুম বিল্লাহ, অঞ্জন, উত্তম, এমজি আজাদ সহ বিপুল সংখ্যক ছাত্রছাত্রী উপিস্থিত ছিলেন। এই আয়োজনে সাস্টিয়ানদের পারস্পরিক সৌহার্দ্য এবং সম্প্রীতি বাড়ানোর জন্য কাজ করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। সমন্বয়ক শমসের রাসেলকে ‘সাস্টিয়ান’স’ এর ব্যাপারে জিজ্ঞাসা করলে তিনি জানান, “এটি প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের একটি রেজিস্টার্ড সংগঠন। যেহেতু শাবি অ্যালামনাই এর সভাপতি মকদ্দুস আলী এর প্রধান উপদেষ্টা, কাজেই এটিই সাবেকদের রেজিষ্টার্ড সংগঠন বলে বিবেচিত হবে।” এক সপ্তাহ আগে ঢাকায় আয়োজিত ‘সাস্টিয়ান’স ইফতার অ্যাণ্ড ডিনার পার্টি’র আয়োজনের সাথে এই আয়োজনের সম্পর্ক আছে কি না, তা জানা যায় নি। উল্লেখ্য, শাবিপ্রবি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন গঠনের এগারোদিনের মাথায় শাবিপ্রবির মাননীয় উপাচার্য, এর অনুমোদন তিন মাসের জন্য স্থগিত রাখেন। শাবিপ্রবির শুরুর দিকের অনেক বিভাগের শিক্ষার্থীকে এই অ্যাসোসিয়েশনের আহ্বায়ক কমিটিতে রাখা হয় নি – এমন অভিযোগের ভিত্তিতে তিনি এই সিদ্ধান্ত দিয়েছিলেন।

একই দিনে চট্টগ্রামের আগ্রাবাদে অবস্থিত হেরিটেজ রেস্টুরেণ্টে ঢাকার অনুরূপ ‘চিটাগং সাস্টিয়ান্স ইফতার অ্যাণ্ড ডিনার পার্টি’র আয়োজন করে চট্টগ্রামে উপস্থিত সাবেক সাস্টিয়ানগণ। এর আয়োজনে ছিলেন হেলাল, সবুজ, রাসেল, ওমর, অনিমেষ, জাহাঙ্গীর, ইমন, সারোয়ার, রিফাত, অর্চিস সহ আরও কয়েকজন।


এর তিনদিন আগে শাবিপ্রবির একটি রাজনৈতিক ছাত্র সংগঠনের সাবেকরাও আয়োজন করে এইরকম মিলনমেলার। জুন ২৮ তারিখে, ঢাকায় বসবাসরত শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের সাবেক নেতা-কর্মীদের এক ইফতার মাহফিলের আয়োজন করা হয় রাজধানীর কাঁটাবনের ‘চিংড়ি’ চাইনিজ রেস্তোরাঁয়। এতে উপস্থিত ছিলেন শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের সাবেক দুই নেতা, ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি আসাদুজ্জামান আসাদ ও উপ শিক্ষা ও পাঠচক্র বিষয়ক সম্পাদক মহিবুল হাসান মুকিত। রাজনৈতিক পথচলায় একসাথে ছিল যাদের পথচলা, অনেকদিন পর একত্রিত হতে পেরে খুশিতে মেতে ওঠেন স্বাভাবিকভাবেই, ইফতার মাহফিলটি পরিণত হয় একটি মিলনমেলায়। ইফতার মাহফিল শেষে শাবিপ্রবির সাবেক ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের একটি ফোরাম গঠনের খসড়া সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

ঢাকায় শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের সাবেক নেতা-কর্মীদের ইফতার || ছবি: সংগৃহীত

ঢাকায় শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের সাবেক নেতা-কর্মীদের ইফতার || ছবি: সংগৃহীত

আগামীকাল ঈদ। সারা মাসের সিয়াম সাধনা পূর্ণতা পাবে আগামীকালের ঈদের জামাতে। গুলশান হামলার কথা মাথায় রেখে ঈদ উপলক্ষ্যে সারা দেশে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। জানা গিয়েছে, নিরাপত্তার স্বার্থে, ঈদের জামাতে কেবলমাত্র জায়নামায ছাড়া অন্য কিছু, বিশেষ করে কোন ব্যাগ, না নেবার জোর অনুরোধ জানিয়েছে বাংলাদেশ পুলিশ। ঈদ উপলক্ষ্যে সাস্টনিউজ টীমের পক্ষ থেকে সকলের প্রতি থাকল শুভকামনা।
eid mubarak

Share via email

ক্যাটাগরি অনুযায়ী সংবাদ

এই সংবাদটি ৬ জুলাই ২০১৬ইং, বুধবার ২০টা ০২মিনিটে অন্যান্য, অর্থনীতি, ইফতার মাহফিল, এস ইউ ডি এস, কিন, ট্যুরিস্ট ক্লাব, থিয়েটার সাস্ট, দিক থিয়েটার, নোঙ্গর, প্রবন্ধ, মিশ্র সংবাদ, সর্বশেষ, স্পোর্টস সাস্ট ক্যাটাগরিতে প্রকাশিত হয়। এই সংবাদের মন্তব্যগুলি স্বয়ঙ্ক্রিয় ভাবে পেতে সাবস্ক্রাইব(RSS) করুন। আপনি নিজে মন্তব্য করতে চাইলে নিচের বক্সে লিখে প্রকাশ করুন।

Leave a Reply

120 x 200 [Sitewide - Site Festoon]
প্রধান সম্পাদক: সৈয়দ মুক্তাদির আল সিয়াম, বার্তা সম্পাদক: আকিব হাসান মুন

প্রকাশিত সকল সংবাদের দায়ভার প্রধান সম্পাদকের। Copyright © 2013-2017, SUSTnews24.com | Hosting sponsored by KDevs.com